ফেইসবুক ভিডিও

হ্যালো বন্ধুরা কেমন আছেন সবাই আশা করি ভাল আছেন। আজকে আপনাদের সামনে যে টপিক নিয়ে আলোচনা করব সেটা আমাদের সবার জন্যই একটা প্রয়োজনীয় জিনিস। আর সেটা হল ফেইসবুক আইডি কীভাবে নিরাপদ রাখবেন।

হ্যাকিং এর নাম শুনলেও যেন কেমন কেমন লাগে।মোটামুটি আমরা সবাই এই শব্দ টার সাথে পরিচিত। আর এই শব্দটা যখনই আমাদের মাথায় আসে তখনই সর্বপ্রথম আমরা চিন্তা করি ফেইসবুক আইডি হ্যাক এর কথা।

আর এটা থেকে যেন আপনি আপনার ফেইসবুক আইডি রক্ষা করতে পারেন আজকে আলোচনা করব সেই বিষয় নিয়েই।

যদিও ফেইসবুক এখন এ ব্যাপারে অনেক সর্তক তবে পরিসংখ্যানে দেখা যায় প্রতি ৫ টা আইডি একটা আইডি হ্যাকিং এর কবলে পড়ে বা ডাটা হ্যাক হওয়ার ঘটনা গঠে

তাই এমন পরিস্তিতি তে যেন আপনি না পড়েন সে বিষয়েই কথা বলব আজকে। তো চলুন শুরু করা যাক।

পরিচয় সঠিক রেখে ফেইসবুক আইডি তৈরি করুন:

 

আমরা এমন অনেকেই আছি যে নিজের পরিচয় ফেইসবুকে না দিয়ে বিভিন্ন নাম দিয়ে ফেইসবুক আইডি খুলি। কিন্তু এটা একদম উচিত নয় সঠিক পরিচয় দিয়ে আমাদের ফেইসবুক আইডি তৈরি করা দরকার।

কারন অনেক সময় হ্যাকারা স্পাম করে যার কারনে ফেইসবুক আপনাকে আপনার আইডেনটিডি ভেরিফাই করতে বলে।

তখন আপনার আইডির যদি ” নীলপরি নীলাদ্রি ” বা ” মফিজ আমার স্বামী ” থাকে সেক্ষেত্রে আপনি আর আইডি ব্যাক করতে পারবেন না

কারন আপনি আইডির আইডেন্টিটি ভেরিফাই করতে ব্যর্থ হবেন।তাই সবার সঠিক পরিচয়ে ফেইসবুক আইডি তৈরি করা উচিত।

ফেইসবুক থেকে ভিডিও ডাউনলোড করার উপায়!

শক্তিশালী পাসওয়ার্ড ব্যবহার করা:

 

আমরা প্রায় সময়ই এমন ভুল করে থাকি যে আমদের ফেইসবুক আইডির পাসওয়ার্ড হয়ত নিজের নাম বা নাম্বার দিয়ে থাকি। কিন্তু এ বিষয় টা একদম উচিত নয়।

কারন যারা হ্যাকার টা অনেক চালাক প্রকৃতির হয় আপনার পাসওয়ার্ড যদি নাম বা নাম্বার দিয়ে দেন তাহলে আপনার আইডি তারা সহজেই হ্যাক করে ফেলতে পারবে

তারা কয়েকবার ট্রাই করেই আপনার পাসওয়ার্ড বের করে ফেলবে তাই এইরকম ভুই করবেন না। শক্তিশালী পাসওয়ার্ড ব্যবহার করুন

আর নিজে যদি তৈরি করতে না পারেন অনলাইনে অনেক পাসওয়ার্ড জেনারেটর আছে সেগুলা থেকে জেনারেট করে নিতে পারেন।

একাউন্ট ভেরিফিকেশন অন করা:

 

ফেইসবুক আইডি সিকিউর করার জন্য ফেইসবুক বিভিন্ন ধরনের সিকিউরিটি সিস্টেম রেখেছে তার মাঝে একটা হল টু ফেক্টর ভেরিফিকেশন।

আপনি সেটিং থেকে এটা অন করে রাখতে পারবেন এটা অন করে রাখলে যখন ই আপনার ফেইসবুকে নাম্বার পাসওয়ার্ড দিয়ে লগিন করতে যাবে

তখন আপনার নাম্বারে একটা সিকিউরিটি কোড যাবে যতক্ষণ সেই কোড আপনি না দিচ্ছেন ততক্ষণ কেউ লগিন করতে পারবে না আর এটা শুধু একবার নয় যতবার

আপনি লগ আউট হয়ে লগিন করতে যাবেন ততবারই এই কোড আপনার মোবাইলে যাবে! এতে করে কেউ সহজেই আপনার আইডি হ্যাক করতে পারবে না।

ফিসিং ওয়েবসাইট থেকে সাবধান থাকা:

 

ফিসিং সম্পর্কে আমরা অনেকে জানি আবার অনেকের কাছে এটা নতুন শব্দ। ফিসিং বলতে সোজা ভাষায় বলি

আমরা বরশি দিয়ে মাছ ধরতে গেলে প্রথমে মাছকে টোপ বা চারা দেই !আর মাছ যদি সেটা খায় তাহলেই আমরা মাছ ধরে ফেলি আর এখানেও ঠিক একই জিনিস ।

হ্যাকার আপনাকে বিভিন্ন জিনিসের প্রলোবন দেখাবে বা আপনি দেখলেন একটা সাইটে লিখা আছে ১০০০! টাকা পেতে এখনই সাইন ইন করুন আর

কিভাবে ফেইসবুক ব্লক লিঙ্ক আনব্লক করবেন

 

আপনি সাথে সাথে ফেইসবুক এর আইডি পাসওয়ার্ড দিয় সাইন ইন করে নিলেন! ব্যাস আপনার অজান্তেই সেটা চলে গেল হ্যাকার এর কাছে। এই জিনিস টা থেকে আমাদের সবার সাবধান থাকতে হবে

কোন লিংক দেখা মাত্রই ক্লিক করে ঢোকা যাবে না এতে করে হ্যাক হয়ে যেতে পারে আপনার আইডি।।

তো কেমন লাগল আজকের আর্টিকেলটি জানতে ভুলবেন না। ভাল লাগলে আপনার বন্ধু বান্ধব এর সাথে শেয়ার করতে পারেন।

By BDTrick

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *